বড়লেখা

বড়লেখায় স'ন্ত্রাসীদের হা'মলায় আ'হত বৃদ্ধের মৃ'ত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক,বড়লেখা:বড়লেখায় স'ন্ত্রাসীদের হা'মলায় গুরুতর আ'হত আমির উদ্দিন(৬৬) মৃৃত্যু বরণ করেছেন।গত মঙ্গলবার (৮ সেপ্টেম্বর) অস্থায়ী বসতঘরে স'ন্ত্রাসীদের হা'মলায় গুরুতর আ'হত হলে আমির উদ্দিনকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতা'লে ভর্তি করা হয়।অবস্থার অবনতি হলে মঙ্গলবার সকালে হাসপাতা'লে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃ'ত্যবরণ করেন।

জানা গেছে, মঙ্গলবার (৮ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাতে নিজ বাহাদুরপুর ইউপির বাউরিলখাল এলাকায় অস্থায়ী বসতঘরে আমীর উদ্দিন ও তার স্ত্রী' বিলকিছ বেগম (৫০) মাছ পাহারা দিচ্ছিলেন। রাত ৩ ঘটিকার সময় নিজ বাহাদুরপুর গ্রামের স'ন্ত্রাসী এবাদ আহম'দ বাপ্পী (২৬), আছার উদ্দিন (৪৫), রাজু আহম'দ (২২), হোসেন (৩৫), শুকুর (৩০), দুদু (৪০), আব্দুল্লাহ (২৫) সহ ১১/১২ জনের স'ন্ত্রাসী বাহিনী দেশীয় অ'স্ত্রশস্ত্রে আমীর উদ্দিন ও বিলকিছ বেগমের উপর অ'তর্কিত হা'মলা চালায়। বিলকিছ বেগমকে আ'হত করে স'ন্ত্রাসীরা আমীর উদ্দিনকে ১ম দফা বাউরিলখালে পিটিয়ে আ'হত করে। পরে স্ত্রী' বিলকিছ বেগম চি'ৎকার শুরু করলে তার চুল কে'টে রাস্তায় ফেলে রেখে আমীর উদ্দিনকে সাধুর কালীবাড়ী টিলায় নিয়ে স'ন্ত্রাসীরা উপর্যুপুরী আ'ঘাত করে। এতে তার দুই পা, দুই হাত, কোম'র ভেঙ্গে যায়, এবং মা'থার এক পাশ দিয়ে শিকল ঢুকিয়ে আরেক পাশ দিয়ে বের করে রাখে। এছাড়াও জিহ্বার এক ইঞ্চি পরিমান কে'টে ফেলে। দুই কানের ভিতরে ছিদ্র করে, ঘাড় ভেঙ্গে দেয়। পরে স'ন্ত্রাসীরা আমীর উদ্দিনকে মৃ'ত ভেবে ফেলে যায়। ভোরে আ'হত স্ত্রী' স্বজনদের খবর দিলে এলাকার লোকজন আমীর উদ্দিনকে উ'দ্ধার করে উপজে'লা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় চিকিৎসকরা তাকে ওসমানী হাসপাতা'লে রেফার করেন।সেখানে টানা ৭ দিন মৃ'ত্যুর সাথে পাঞ্জা ল'ড়ে মঙ্গলবার তিনি শেষ নিঃশাস ত্যাগ করেন।

বড়লেখা থা'নার ওসি মো. জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার বিয়ানীবাজার টাইমসকে জানান,আমির উদ্দিন নামের আ'হত বৃদ্ধ মা'রা গেছেন।মা'মলা দায়েরের পরই আসামীদের গ্রে'ফতারে পু'লিশ সাড়াঁশি অ'ভিযান শুরু করেছে।এখন পর্যন্ত কোন আসামীকে গ্রে'ফতার করা সম্ভব হয়নি।অ'ভিযান অব্যাহত আছে।

Back to top button