খেলাধুলা

সাকিব-এবাদতের তোপে থামল শ্রীলঙ্কা

বৃষ্টি বিঘ্নিত তৃতীয় দিনে প্রায় দেড় সেশন ব্যাটিং করতে না পারলেও ৫ উইকে’টে ২৮২ রান তুলে দিন শেষ করে শ্রীলঙ্কা। প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশের করা ৩৬৫ রান টপকাতে চতুর্থ দিনে আরও ৮২ রান লাগত সফরকারীদের। আজ দিনের প্রথম সেশনে দেড় ঘণ্টায় ৩৩ ওভা’রেই বাংলাদেশের রান টপকে লিড নিতে শুরু করেন দুই ব্যাটার অ্যাঞ্জে’লো ম্যাথুস ও দীনেশ চান্ডিমাল।

দুজনে রান তুলতে থাকেন দ্রুত। আগের দিনে ৫৮ রানে দিন শেষ করা ম্যাথুস মধ্যাহ্ন বিরতির আগে ৯৩ রান করে শেষ করেন প্রথম সেশন, আরেক ব্যাটার চান্ডিমাল করেন ১০ রান।

মধ্যাহ্ন বিরতি শেষে ম্যাথুস তুলে নেন ক্যারিয়ারের ১৩তম শতক। এরপর যেন আরও বেশি আগ্রাসী হয়ে ওঠেন চট্টগ্রাম টেস্টে ১৯৯ রানের ইনিংস খেলা এই ম্যাথুস। একই ভাবে ব্যাট চালাতে থাকেন চান্ডিমাল। তিনিও তুলে নেন ক্যারিয়ারের ১২তম শতক।

দুজনের ব্যাটে ভর করে উড়তে থাকা শ্রীলঙ্কাকে যেন বেধে রাখাই যাচ্ছিল না। শেষ পর্যন্ত দলীয় ৪৬৫ রানের মা’থায় চান্ডিমালকে ১২৪ রানে ফেরান এবাদত হোসেন। চান্ডিমালকে ফেরানোর খানিক পরেই নিরশন ডিকভেলাকে (৯) ফেরান সাকিব আল হাসান।

এরপর নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে শ্রীলঙ্কা। রমেশ মেন্ডিসকে ১০ রানে ফেরান এবাদত। আগের দিন ৩ উইকেট নেয়া সাকিব আজ চান্ডিমালের পর প্রবীণ জয়াবিক্রমাকে ফিরিয়ে পূর্ণ করেন ক্যারিয়ারের ১৯তম ৫ উইকেট। একই সঙ্গে পূর্ণ করেন দেশের মাটিতে ১৫০ উইকেট।

শেষ ব্যাটার আসিথা ফার্নান্দোকে রান আউট করে সাজঘরে ফেরান মুশফিকুর রহিম। লঙ্কানদের ইনিংস ৫০৬ রানে শেষ হলেও অ্যাঞ্জে’লো ম্যাথুস থেকে গেছেন ১৪৫ রানে অ’পরাজিত। প্রথম ইনিংসে সফরকারীরা লিড নিয়েছে ১৪১ রান। বাংলাদেশের পক্ষে সাকিবের ৫ উইকে’টের সঙ্গে এবাদত নিয়েছেন ৪ উইকেট।

Back to top button
error: Alert: Content is protected !!