আন্তর্জাতিক

ফ্রিহোল্ড এবং লিজহোল্ড প্রপার্টি

আমাদের আজকের আলোচনার বিষয়, বিলেতে ফ্রিহোল্ড এবং লিজহোল্ড প্রপার্টির মধ্যে পার্থক্য এবং এসব প্রপার্টি কেনার ব্যাপারে আপনার যা করতে হবে।

বিলেতে আপনি যদি ফ্রিহোল্ড প্রপার্টি কিনেন, তাহলে আপনি একই সাথে প্রপার্টির জমির মালিক এবং জমিতে অবস্থিত বাড়িরও মালিক। আর যদি আপনি লিজহোল্ড প্রপার্টি কিনেন, তাহলে আপনি একটি নির্দিষ্ট মেয়াদের জন্য লিজহোল্ড প্রপার্টির মালিক, কিন্তু প্রপার্টির জমি বা জায়গার মালিক নন।

জমির মালিককে বলা হয় ফ্রিহোল্ডার বা ল্যান্ডলর্ড। সাধারণত, বিলেতে বেশিরভাগ বাড়ি ফ্রিহোল্ডে এবং বেশিরভাগ ফ্ল্যাট লিজহোল্ডে বিক্রি হয়।

ফ্রিহোল্ড এবং লিজহোল্ড প্রপার্টির মধ্যে তুলনামূলক পার্থক্য

লিজহোল্ড প্রপার্টি একটি দীর্ঘমেয়াদী নির্দিষ্ট সময়ের জন্য ফ্রিহোল্ডার বা ল্যান্ডলর্ডের কাছ থেকে লিজ নিতে হয়।
এর জন্য সার্ভিস চার্জ এবং গ্রাউন্ড রেন্ট দিতে হয়।
এর মূল্য ফ্রিহোল্ড প্রপার্টি তুলনায় কম।
লিজহোল্ড প্রপার্টির বিল্ডিং ইন্সুরেন্স সাধারণত প্রপার্টির ফ্রিহোল্ডার বা ল্যান্ডলর্ড করে থাকে।
এর জন্য মেইনটেনেন্স চার্জ দিতে হয়।

ফ্রিহোল্ড

ফ্রিহোল্ড প্রপার্টি কিনলে আপনি একইসঙ্গে প্রপার্টির জমির মালিক এবং জমিতে অবস্থিত বাড়িরও মালিক।
এর জন্য গ্রাউন্ড রেন্ট এবং সার্ভিস চার্জ নেই।
এর মূল্য সাধারণত বেশি।
প্রায় সব ফ্রিহোল্ড প্রপার্টিতে গার্ডেন বা প্লে-গ্রাউন্ড থাকে।

লিজহোল্ড প্রপার্টি কেনার ক্ষেত্রে যেসব বিষয় লক্ষ্য রাখতে হবে

সাধারণত, বিলেতে বেশিরভাগ ফ্ল্যাট লিজহোল্ডে বিক্রি হয়। লিজ হল একটি লিগাল এগ্রিমেন্ট, যা লিজহোল্ড ফ্ল্যাটের ক্রেতা এবং প্রপার্টির ল্যান্ডলর্ডের মধ্যে হয়।

লিজহোল্ড প্রপার্টি কেনার সময় ক্রেতাকে লক্ষ্য রাখতে হবে তিনি কত বছরের জন্য লিজ নিয়ে প্রপার্টি কিনেছেন। সাধারণত এই লিজ দীর্ঘ মেয়াদী হয়।

লিজহোল্ড প্রপার্টির গ্রাউন্ড রেন্ট এবং সার্ভিস চার্জ প্রপার্টির ল্যান্ডলর্ডের কাছ থেকে জেনে নিতে হবে। কারণ আপনি যদি ম’র্গেজ নিয়ে প্রপার্টির কিনতে চান, সেক্ষেত্রে ম’র্গেজ এফোর্ডেবিলিটি ক্যালকুলেশন করার সময় প্রপার্টির গ্রাউন্ড রেন্ট এবং সার্ভিস চার্জ আপনার কাছে জানতে চাওয়া হবে।

আপনাকে জানতে হবে:

আপনি যে লিজহোল্ড ফ্ল্যাট কিনতে চাচ্ছেন, সেটি স্টুডিও ফ্ল্যাট নাকি পারপস বিল্ড ফ্ল্যাট? ফ্লাটটি কত স্কোয়ার ফিট? প্রপার্টিতে কয়টি ফ্লোর এবং কয়টি ইউনিট রয়েছে? প্রপার্টিটি কবে তৈরি করা হয়েছে?

ম’র্গেজ নিয়ে ফ্রিহোল্ড এবং লিজহোল্ড প্রপার্টি কিনতে কি কি ডকুমেন্ট লাগবে

প্রপার্টি কেনার জন্য ব্যাংক থেকে ঋণ নেওয়াকে বলা হয় ম’র্গেজ। প্রপার্টি কেনার পুরো প্রক্রিয়ার মধ্যে ম’র্গেজটা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। কারণ, এই ম’র্গেজ পাওয়ার উপর নির্ভর করছে আপনি কী’ ধরনের প্রপার্টি এবং কত দামের প্রপার্টি কিনতে পারবেন।

বিলেতে ম’র্গেজ নিয়ে প্রপার্টি কিনতে কয়েক মাস সময় লেগে যায়। তবে যদি আপনার ভালো প্রস্তুতি থাকে তাহলে কোনো ঝামেলা ছাড়াই ক্রয় প্রক্রিয়াটা দ্রুত সম্পন্ন করা যায়। তাই ম’র্গেজের আবেদন করার আগে নিচের ডকুমেন্টগুলো আপনার কাছে রাখা উচিৎ।

পরিচয়পত্র
ঠিকানার প্রমাণপত্র
ইনকা’ম ডকুমেন্ট
ব্যাংক স্টেটমেন্ট
ডিপোজিট স্টেটমেন্ট

ক্রেডিট রিপোর্ট
ইলেক্ট্ররাল রোল
ম’র্গেজ সংক্রান্ত যেকোনো ব্যাপারে আরো বিস্তারিত জানতে আমাদের সাথে নিচের টেলিফোন নাম্বারে অথবা ইমেইলে যোগাযোগ করতে পারেন।

Email: [email protected]

Tel: 02080502478

Back to top button
error: Alert: Content is protected !!