জাতীয়সারাদেশ

মালিবাগে কাজের মে য়ের ভ য়ানক কা ণ্ড, সিসিটিভি ফুটেজ দেখে অ বাক সবাই

রাজধানীর মালিবাগে ফাঁকা বাসায় সত্তরোর্ধ্ব এক বৃদ্ধা বর্বর নি র্যা তনের শিকার হয়েছেন বাসার গৃহকর্মীর হাতে। পরে নগদ টাকা-পয়সা এবং স্বর্ণালঙ্কার নিয়ে পালিয়ে যায় ওই গৃহকর্মী।

সোমবার (১৮ জানুয়ারি) সকালে এ ঘটনা ঘটে। পরে বাসার সিসি ক্যামেরার ফুটেজ থেকে বিস্তারিত জানা যায়।

ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, বছর তিনকে ধরে কিডনীর সমস্যাসহ নানা শারীরিক জটিলতায় ভোগা বিলকিস বেগম নামে ওই বৃদ্ধা শুয়ে আছেন বিছানায়। পাশে পরম যত্নে তার সেবা করছেন রেখা নামের এক গৃহকর্মী। শুরুতে বুঝার উপায় নাই, একটু পরে কি ঘটতে যাচ্ছে।

পরম মমতার পেছনে যে কত ভ য়ংকর পরিকল্পনা লুকিয়ে ছিলো তার বহিঃপ্রকাশ কিছুক্ষণ পরেই দেখা যায়।

ভিডিও ফুটেজে কিছুক্ষণ পরই দেখা যায়, জো র করে বিলকিস বেগমকে বাথরুমে ঢোকাচ্ছে রেখা। এরই মাঝে খুলে ফেলা হয়েছে তার শরীরের সব কাপড়। শীতের সকালে বৃদ্ধার গায়ে ইচ্ছেমতো ঢালা হয় ঠাণ্ডা পানি। কিন্তু ভেতরে গৃহকত্রীকে আ ট কাতে না পেরে বেরিয়ে আসে রেখার আসল চেহারা। যে লা ঠি বৃদ্ধ বয়সে ছিলো ভরসা, তা দিয়েই শুরু হয় বেদম প্রহার। মা র খেয়ে ফ্লোরে পড়ে গেলেও ক্ষান্ত হননি রেখা। এরপরও একের পর এক আ ঘাত করা হয় মা থায়।

এক পর্যায়ে হাতের কাছে যা পেয়েছে তা দিয়েই চালিয়েছে নি র্যা তন। আলমা রির চাবির জন্য বুকে উপর চেপে বসে। বটি হাতেও তেড়ে আসেন রেখা। এসব কিছুর মাঝে তার লক্ষ্য আলমা রি। এক সময় অসহায়ের মতো আত্মসম র্পণ করেন বিলকিস বেগম। তার গলা থেকে স্বর্ণের চেইন খুলে নিজের গলা পরেন। আয়েশি ভঙ্গিতে পরখ করে নেন হাতের বালা।

তারপর চাবির সন্ধান পায় নিষ্ঠুর এই গৃহকর্মী। কিন্তু খুলতে না পেরে র ক্তাক্ত, অ সুস্থ বৃদ্ধাকে টেনে নিয়ে বাধ্য করেন আলমা রি খুলে দিতে। ড্রয়ার খুলে স্বর্ণ, নগদ টাকা, মোবাইল সবই হস্তগত করে রেখা।

পুরোটা সময় বিবস্ত্র বৃদ্ধা, নিজের হাতেই র ক্ত থামাতে মা থায় বাঁধেন কাপড়। সব হাতানোর পর কক্ষে তালা দেয় রেখা। তারপর খুলে আনে টিভি। জোগাড় করে ব্যাগ। সবকিছু গুছিয়ে ফাঁকা বাসায় আ হত বৃদ্ধাকে ফেলে বেরিয়ে যায় গৃহকর্মী।

মালিবাগের ওই বাসাটিতে স্বামী মৃ ত্যুর পর দুই ছে লে ও তিন মে য়ের মধ্যে দুজনকে নিয়ে এতদিন নিরাপদেই বসবাস করে আসছিলেন বিলকিস বেগম।

বৃদ্ধার মে য়ে মেহবুবা জানান, মাকে হাসপাতা লে ভর্তি করা হয়েছে। বাসা ফাঁকা রেখে ভাইয়েরা ঢাকার বাইরে যাওয়ায় গৃহকর্মী এমন সুযোগ পেয়েছে। পরে মঙ্গলবার (১৯ জানুয়ারি) শাহ জাহানপুর থা নায় অ ভিযোগ জানান তিনি।

এ বিষয়ে শাহ জাহানপুর থা না পু লিশ গণমাধ্যমকে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানায়, গৃহকর্মীদের নামে ছদ্মবেশে পেশাদার অ প রাধীরা ঢুকে যাচ্ছে মানুষের বাসাবাড়িতে। বাসাবাড়িতে গৃহকর্মীদের কাজ দেওয়ার আগে তাদের বিষয়ে ভালো ভাবে খোঁজ নেওয়ার জন্য সতর্ক করেন।

Back to top button
error: Alert: Content is protected !!