কুলাউড়ামৌলভীবাজার

কুলাউড়ায় ব্রোকলি চাষে সফল কি শোরী ইয়াছমিন

কুলাউড়া প্রতিনিধি: কুলাউড়া উপজে লার ব্রাহ্মণবাজার ইউনিয়নের উত্তর হিংগাজিয়া এলাকার ইয়াসমীন বেগম (১৯) ব্রোকলি জাতীয় সবজি চাষ করে সফল হয়েছেন। তিনি সিএনআরএস ‘সূচনা’ প্রকল্পের ওই এলাকার কি শোর-কি শোরী ক্লাবের সদস্য। সোমবার ২৫ জানুয়ারি ওই এলাকায় উন্নত পদ্ধতিতে ব্রোকলি চাষের উপর মাঠ দিবস অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এতে এলাকার প্রায় ৬০ কৃষক-কৃষানি অংশ নেন।

ব্রাহ্মণবাজার ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ড সদস্য মো. কা মাল হোসেনের সভাপতিত্বে এবং সূচনা প্রকল্পের মনিটরিং অফিসার মনোজ কান্তি দাসের উপস্থাপনায় মাঠ দিবস অনুষ্ঠানে প্রধান অ তিথি ছিলেন কুলাউড়া উপজে লা কৃষি কর্মক র্তা মো. আব্দুল মোমিন। এতে মাঠ দিবসের উদ্দেশ্য নিয়ে বিস্তর আলোচনা করেন সূচনা প্রকল্পের সিনিয়র টেকনিক্যাল অফিসার কৃষিবিদ মো. মোফাজ্জল হোসেন এবং ব্রোকলি চাষের সহ জ পদ্ধতি বর্ণনা করেন গ্রামীণ আদর্শ খামা রি (ভিএমএফ) ইয়াসমীন বেগম।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অ তিথি ছিলেন, ডিস্ট্রিক ম্যানেজার কা ম হর্টিকালচার আবু হান্নান, এসটিএস, আইডিই মো. হেলাল উদ্দিন, উপসহকারী কৃষি কর্মক র্তা বিমল চন্দ্র, সূচনার ইউসি মো. ফারুক মিয়া প্রমুখ।

জানা যায়, এনজিও সংস্থা সিএনআরএস ‘সূচনা’ প্রকল্পের কর্মক র্তাদের পরাম র্শ এবং তাদের দেয়া বিজ ও বিভিন্ন উপকরণ পেয়ে কি শোরী ক্লাবের ইয়াসমীন বেগম শুরু করেন শাক-সবজি চাষাবাদ। বাড়ির সামনের প্রায় ১০ শতক জমিতে নতুন জাতের সবজি ব্রোকলি চাষ করে এবার সফল হয়েছেন তিনি। এছাড়াও লালশাক, আলু, বেগুন, টমেটো, মিষ্টি কুমড়া, সিম, গাজর প্রভৃতি সবজি চাষ করে একজন সফল কৃষাণী হিসেবে এলাকায় পরিচিতি লাভ করেছেন। কি শোরী ইয়াসমীনের সফলতা দেখে এলাকার অনেকেই আজ সবজি চাষে উদ্যোগি হয়েছেন।

ইয়াসমীন বেগম জানান, ভালো পরাম র্শ ও সহযোগীতা পেলে যে কোন মানুষই লক্ষ্য অর্জন করতে পারে। আমি সূচনার অনুপ্রেরণায় সবজি চাষ শুরু করি। আজ এলাকার অনেকেই আমা র সবজি ক্ষেত দেখতে আসেন এবং পরাম র্শ নিয়ে সবজি চাষে উৎসাহী হচ্ছেন। এছাড়াও সূচনার কাছ থেকে আর্থিক সহায়তা পেয়ে হাস-মুরুগ লালন-পালনও করছেন তিনি।

কুলাউড়া উপজে লা কৃষি কর্মক র্তা মো. আব্দুল মোমিন জানান, উপজে লা কৃষি অফিসের পরাম র্শে সূচনা প্রকল্পের মাধ্যমে বিভিন্ন এলাকার কৃষক-কৃষানীকে নতুন নতুন জাতের সবজি বীজ দেওয়া হয়েছে। সূচনার পাশাপশি কৃষি অফিস থেকে তাদেরকে সবসময় সার্বিক পরাম র্শ দেওয়া হয়। তাদের মধ্যে হিংগাজিয়া এলাকার কি শোরী ইয়াসমীন বেগম ব্রোকলি চাষ করে বেশ সফলও হয়েছেন।

Back to top button
error: Alert: Content is protected !!