বানিয়াচঙ্গে যৌতুকের জন্য গৃহবধুকে পি'টিয়ে হ'ত্যা

হবিগঞ্জ প্রতিনিধিঃ হবিগঞ্জে বানিয়াচঙ্গে যৌতুকের টাকার জন্য গৃহবধু মনোয়ারা বেগম (২৫) কে নি'র্মম ভাবে পি'টিয়ে হ'ত্যা করা হয়েছে বলে অ'ভিযোগ উঠেছে স্বামীর বি'রুদ্ধে।

গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতা'লে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃ'ত্যু হয় তার। এ ঘটনার পর থেকেই ঘা'তক স্বামী লিটন মিয়া পালাতক রয়েছে। খবর পেয়ে পু'লিশ ম'রদেহ উ'দ্ধার করে ময়না ত'দন্তের জন্য হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতাল ম'র্গে প্রেরণ করে।

স্থানীয় ওয়ার্ড মেম্বার আজমান মিয়া জানান, উপজে'লার বলাকী'পুর গ্রামের লিটন মিয়ার সাথে প্রায় ৩ বছর পুর্বে বিয়ে দেয়া হয় কুশিয়ারতলা গ্রামের মোহাম্ম'দ আলীর মে'য়ে মনোয়ারা বেগমকে। বিয়ের পর তাদের কোল জুড়ে দুইটি সন্তান জন্মগ্রহন করে। সম্প্রতি তাদের মধ্যে যৌতুকের টাকার জন্য কলহের সৃষ্টি হয়। বেশ কয়েকবার তার স্বামী লিটন মিয়া মনোয়ারাকে টাকা আনতে মা'রধোর করে পিত্রালয়ে পাঠায়।

বৃহস্পতিবার বিকেলে তাদের মধ্যে ফের ঝগড়া হয়। এক পর্যায়ে লিটন মিয়া মনোয়ারাকে বেধরক মা'রপিট করে গুরুতর আ'হত করে। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উ'দ্ধার করে হাসপাতা'লে নিয়ে আসলে কয়েক ঘন্টা চিকিৎসাধীন থাকার পর তার মৃ'ত্যু হয়। মৃ'ত্যুর পর পরই ঘা'তক স্বামী লিটন মিয়া আত্মগো'পনে চলে যায়।